উইচ্যাট নিষিদ্ধ করলে ক্ষতির মুখে পড়বে অ্যাপল

উইচ্যাট নিষিদ্ধ করলে ক্ষতির মুখে পড়বে অ্যাপল

চীন-আমেরিকার মধ্যে চলা বাণিজ্যেযুদ্ধে ইতিমধ্যে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে অসংখ্য চীনা ও মার্কিন সংস্থা । এবার সেই তালিকায় নাম যোগ হতে পারে অ্যাপলের। আসলে ইউচ্যাটের সঙ্গে আমেরিকান কোম্পানিগুলোর ব্যবসা-বাণিজ্যে রাশ টানার উদ্দেশ্যে গত ৬ আগস্ট মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোলান্ড ট্রাম্প একটি এক্সিকিউটিভ অর্ডারে সাইন করেছেন৷ কিন্তু ট্রাম্প প্রশাসনের এই নির্দেশ মেনে মার্কিন বহুজাগতিক সংস্থা, অ্যাপেল যদি তাদের অ্যাপ স্টোর থেকে উইচ্যাটকে ব্যান করতে বাধ্য হয়, তাহলে চীন-আমেরিকার মধ্যে চলা বাণিজ্যেযুদ্ধে ক্ষতিগ্রস্ত কোম্পানিগুলোর মধ্যে নবতম সংযোজন হতে পারে অ্যাপেল নিজেই৷

রিপোর্ট অনুযায়ী, অ্যাপেলের এই পদক্ষেপের ফলে আইফোনের বিক্রি ২০-৩০ শতাংশ এবং অ্যাপেলের অন্যান্য প্রোডাক্ট যেমন- আইপ্যাড, ম্যাক, অ্যাপেল ওয়াচের বিক্রি ১৫-২৫ শতাংশ কমে যেতে পারে৷ অ্যানালিসিস্ট মিং-চু-কুয়োর মতে, অ্যাপলের প্ল্যাটফর্ম থেকে ইউচ্যাট ব্যানের পরিণাম হতে পারে ভয়ংকর৷ কারণ আইফোনের একটি গুরুত্বপূর্ণ বাজার হলো চীন৷ এমনকি চীনে অ্যাপেলের বহু হার্ডওয়্যার ও তাদের প্রোডাক্ট অ্যাসেম্বলিং-এর প্লান্টও বর্তমান৷

এছাড়া চীনে উইচ্যাটের মাধ্যমেই ব্যবহারকারীরা একটি প্ল্যাটফর্মে সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং থেকে আরম্ভ করে ই-কমার্স, অনলাইন পেমেন্ট, খবরের কাগজ পড়া, ইনস্টান্ট মেসেজিং সহ নানা প্রোডাক্টিভ কাজ করার সুবিধা ভোগ করে৷ স্বাভাবিকভাবেই চীনে উইচ্যাটের জনপ্রিয়তা তুঙ্গে৷ তাই মার্কিন প্রসাশনের নির্দেশ মেনে যদি উইচ্যাটকেই অ্যাপেল তাদের প্ল্যাটফর্ম থেকে নিষিদ্ধ করে দেয়, তাহলে চীনে চরম ক্ষতির সম্মুখীন হবে মার্কিন সংস্থাটি৷