ডিজিটাল বাল্যবিবাহ বন্ধ করলেন ইউএনও শুভাশিস ঘোষ

ডিজিটাল বাল্যবিবাহ বন্ধ করলেন ইউএনও শুভাশিস ঘোষ

বিশেষ প্রতিনিধি: সদ্য যোগদানকৃত কুমিল্লার সদর দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী অফিসার শুভাশিস ঘোসের হস্তক্ষেপে নবম শ্রেণির এক ছাত্রী ডিজিটাল বাল্যবিবাহের হাত থেকে রক্ষা পেল। সৌদি প্রবাসীর সাথে যখন ভিডিও কলের মাধ্যমে বাল্যবিবাহের প্রস্তুতি চলছিল ঠিক সেই সময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে  বিবাহস্থলে উপস্থিত হয়ে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে মেয়ের বাবা এবং বিবাহ সম্পাদনের জন্য উপস্থিত ইমামকে আটক করা হয়েছে। ভ্রাম্যমাণ আদালতে মেয়ের বাবা আবু হানিফকে ৫০হাজার টাকা অর্থদন্ড প্রদান করা হয়েছে এবং ইমাম মোঃ ইমাম হোসেনকে ০৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে।

শুক্রবার উপজেলার গলিয়ারা উত্তর ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী শোভানগর গ্রামে ওই ছাত্রীর বাড়িতে গিয়ে বিয়ে বন্ধ করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শুভাশিস ঘোষ।

ইউএনও বলেন, গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারি প্রযুক্তির সহায়তায় সৌদি প্রবাসী সাথে ডিজিটাল ভাবে বিয়ে কাজ করা হবে। ঘটনার স্থলে গিয়ে তার প্রমাণও মিলে। মেয়ের বাবা আবু হানিফকে নগদ ৫০ হাজার টাকা জরিমান এবং বিয়ে পড়ানোর কাজী ইমাম হোসেনকে ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রধান করা হয়। এসময় সদর দক্ষিণ মডেল থানার এএসআই আনোয়ারসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলো।