যেসব লক্ষণে বুঝবেন শরীরে ভিটামিন ডি’র ঘাটতি আছে

যেসব লক্ষণে বুঝবেন শরীরে ভিটামিন ডি’র ঘাটতি আছে

শরীরে ভিটামিন ডির অভাব খুবই সাধারণ বিষয়। পৃথিবীর প্রায় এক বিলিয়ন লোকের মধ্যে ভিটামিন ডির অভাব লক্ষ্য করা যায়। ভিটামিন ডি শরীরের অন্যতম প্রয়োজনীয় উপাদান। আমাদের শরীরের হাড় ও মাংসপেশির জন্য ভিটামিন ডি অপরিহার্য। সূর্যের উপস্থিতিতে শরীরে ভিটামিন সংশ্লেষিত হয়। শরীরে স্ফূর্তি বজায় রাখার জন্য ভিটামিন ডি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ভিটামিন ডির অভাব আপনার শরীরে বয়ে আনতে পারে বিভিন্ন রোগের জ্বালা।

শরীরের ঘা শুকাতে দেরি হলে

গবেষণা করে দেখা গেছে ভিটামিন ডি আপনার শরীরে নতুন চামড়া গজাতে সাহায্য করে। শরীরের যেকোনো অংশে হওয়া ঘা শুকানোর ব্যাপারে বিশেষ ভাবে সাহায্য করে।

প্রায়ই অসুস্থ হয়ে পড়া

ভিটামিন ডির আপনার শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। বারবার অসুস্থ হয়ে পড়া শরীরে ভিটামিন ডি ঘাটতির সঙ্কেত হতে পারে।

হাড় এবং পিঠে ব্যথা

ভিটামিন ডি শরীরে ক্যালসিয়ামের ভারসাম্য বজায় রাখতে সাহায্য করে। যদি নিয়মিত শরীরে হাড় বা পিঠে ব্যথা বোধ করেন, তাহলে বুঝবেন এটা ভিটামিন ডির অভাবের কারণে ঘটতে পারে। নিয়মিত শরীরে হাড় বা পিঠে ব্যথা বোধ করেন, তাহলে বুঝবেন এটা ভিটামিন ডির অভাবের কারণে ঘটতে পারে।

হাড় ক্ষয় হতে শুরু করলে

ক্যালসিয়ামের এভাবে শরীরে হাড় ক্ষয়িতে শুরু করে। ক্যালসিয়াম সংশ্লেষণের ক্ষেত্রে ভিটামিন ডি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। বৃদ্ধ বয়সে যারা হাড়ের সমস্যাতে ভোগেন, তাদের ক্যালসিয়াম সহ বেশ কিছু খনিজের অভাব পূরণ করতে বলা হয়, সেই সঙ্গে ভিটামিন ডির দিকেও বিশেষ নজর দিতে বলা হয়।

মাংসপেশিতে ব্যথা

ভিটামিন ডির অভাবে আপনার শরীরের মাংসপেশি গুলোতে ব্যথা যন্ত্রণার সৃষ্টি হয়। ভিটামিন ডি শরীরের মাংসপেশিকে দৃঢ়তা প্রদান করে, যার ফলে ব্যথা যন্ত্রণার হাত থেকে রেহাই পাওয়া যায়।

ক্লান্তিবোধ করা

সুস্থ জীবন শৈলী ও পরিষ্কার ঘুম হওয়ার পরেও যদি আপনি ক্লান্ত বোধ করেন, তাহলে বুঝতে হবে আপনার শরীরে ভিটামিন ডির ঘাটতি হচ্ছে। এই বিষয়টি কখনই এড়িয়ে যাবেন না, সেক্ষেত্রে কীভাবে এই ঘাটতি পূরণ করা যায়, সেদিকে নজর দিন।

অবসাদ

ভিটামিন ডির এভাবে আপনার মনে অবসাদের সৃষ্টি হতে পারে। বিশেষ করে বয়স্কদের ক্ষেত্রে এই বিষয়টি লক্ষ্য করা যায়। এক গবেষণায় দেখা গেছে, অবসাদ গ্রস্থ ব্যক্তিকে সাপ্লিমেন্ট দেওয়ার পর সে অনেকটাই সুস্থ বোধ করে।