February 20, 2019 5:25 am
Breaking News
Home / রাজনীতি / গ্রেনেড হামলার রায়ে ঢিলেঢালা কর্মসূচিতে ক্ষুব্ধ তারেকপন্থী নেতারা

গ্রেনেড হামলার রায়ে ঢিলেঢালা কর্মসূচিতে ক্ষুব্ধ তারেকপন্থী নেতারা

নিউজ ডেস্ক: বহুল আলোচিত ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলায় বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের সাজা ঘোষণার রায়কে প্রত্যাখ্যান করে তাৎক্ষণিকভাবে কঠোর কর্মসূচির বদলে ঢিলেঢালা কর্মসূচি পালন করায় ক্ষুদ্ধ তারেকপন্থী বিএনপি নেতারা।

সূত্র বলছে, মির্জা ফখরুল, মির্জা আব্বাস, মওদুদ আহমেদের মতো খালেদাপন্থী বিএনপি নেতাদের চক্রান্তেই কঠোর কর্মসূচি দিতে পারছে না বিএনপির তারেকপন্থী নেতারা। ধারণা করা হচ্ছে বিএনপিকে কলুষিত করায় এবং বিএনপিতে বেগম জিয়ার একক কর্তৃত্ব টিকিয়ে রাখতেই কৌশলে কঠোর কর্মসূচির ঘোষণা দেওয়া হয়নি দলের পক্ষ থেকে।

বিএনপির নয়াপল্টন পার্টি অফিস সূত্রে জানা যায়, রায় ঘোষণার পরপরই দলীয় কার্যালয়ে ভিন্নরকম পরিবেশ সৃষ্টি হয়। ঘটনাস্থলে উপস্থিত ঢাকা মহানগর বিএনপি দক্ষিণের দফতর সম্পাদক সাইদুর রহমান মিন্টু বলেন, রায় ঘোষণার পরই মির্জা ফখরুল, মির্জা আব্বাস, মওদুদ আহমেদসহ একাধিক খালেদা জিয়ার কাছের নেতাদের মুখে কিছুটা হাসিভাব দেখে আমি একটু অবাক হয়ে যাই। দলের ভবিষ্যৎ কান্ডারির যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়ে রায় দেওয়া হলো অথচ সিনিয়র নেতাদের বিচলিত দেখা গেলো না। দলের এমন কঠিন সময়ে সিনিয়র নেতাদের খোশগল্প দেখে কর্মীরা দ্রুত রিজভী আহমেদের কক্ষে ভিড় করেন। তাকে কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা এবং সারা দেশে বিএনপির কর্মীদের মাঠে নামারও অনুরোধ জানিয়ে পরামর্শ দেন কর্মীরা। উপস্থিত কর্মীরা তারেক রহমানের প্রতি আনুগত্য ও ভালবাসা অনুধাবন করে বক্তব্য দেওয়ার জন্য মির্জা ফখরুলের কাছে অনুমতি নিতে গেলে বিতর্ক শুরু হয়ে যায়। মির্জা ফখরুল তারেক রহমানের কৃতকর্মের জন্য বিএনপির নেতা-কর্মীদের বলির পাঁঠা না বানানোর পক্ষে যুক্তি তুলে ধরেন।

মির্জা ফখরুলের মতে, তারেক এরইমধ্যে গ্রেনেড হামলার মামলায় দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন। তার কারণে বিএনপির ইমেজ নষ্ট হয়েছে। এদিকে নেত্রী অসুস্থ হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তারেকতো বিদেশে আরাম-আয়েসে জীবনযাপন করছেন। সরকার হাজার চেষ্টা করলেও তারেককে ফিরিয়ে এনে সাজা কার্যকর করতে পারবে না। রায় দিয়ে সরকার নিজেকে বুঝ দিয়েছে, জনগণের সমর্থন পাওয়ার চেষ্টা করেছে। তারেক রহমানের চেয়ে খালেদা জিয়ার মুক্তি আমাদের কাছে বেশি গুরুত্বপূর্ণ। সুতরাং এখন বিশৃঙ্খলার ঘোষণা দিয়ে বিএনপির কর্মীদের মাঠে নামানোর প্রয়োজন দেখছে না বিএনপি। বরং খালেদা জিয়ার মুক্তির আন্দোলনে তৃণমূল বিএনপির নেতা-কর্মীদের মাঠে নিয়ে নামাটা বেশি জরুরি। বিএনপি বলতে মানুষ খালেদা জিয়াকে চেনে। খালেদা জিয়াই বিএনপির প্রাণ।

এদিকে মির্জা ফখরুলের এমন একপেশে বক্তব্যে হতাশ হয়ে পড়েন রিজভী। চোখের আড়ালে থাকায় তারেক রহমান বিএনপির জন্য গৌণ বিবেচনা করায় মির্জা ফখরুলের সিদ্ধান্তে ক্ষুব্ধ হয়ে পড়েন রিজভীসহ উপস্থিত কর্মীরা। পরবর্তীতে রায়ের বিপরীতে বিএনপির নেতিবাচক মনোভাব তুলে ধরে রুটিন ওয়ার্কস্বরূপ ঢিলেঢালা কর্মসূচি ঘোষণা দেওয়ার জন্য রিজভীকে আদেশ দেন। উপায়হীন রিজভী সিনিয়র নেতাদের বিভক্তিমূলক আচরণে বিস্মিত হয়ে দেশব্যাপী ঢিলেঢালা কর্মসূচি ঘোষণা করেন। কর্মসূচি ঘোষণা করার পর পর মির্জা ফখরুলদের এমন বিমাতাসূলভ আচরণে রিজভীসহ তারেকপন্থী নেতারা ঘটনাস্থলে বিক্ষোভ করতে থাকেন এবং তারেক রহমানকে অবহেলা করার জন্য ভবিষ্যতে চরমমূল্য দিতে হবে বলেও মন্তব্য করে ঘটনাস্থল ত্যাগ করেন।

তারেক রহমানের মতো একটি দলের ভবিষ্যত কর্ণধারের বিরুদ্ধে রায় দেওয়ার পরও কঠোর কর্মসূচি না দেওয়ায় বিএনপিতে স্পষ্ট বিভক্তি ও দলের প্রতি নেতাদের অবহেলার বিষয়ে বিস্ময় প্রকাশ করেছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা। তবে কী শুধু খালেদা জিয়াই বিএনপির সব কিছু? নাকি খালেদার অনিচ্ছায় এমনটি হচ্ছে সেটি নিয়েও শঙ্কা প্রকাশ করেছেন বিশ্লেষকরা।

About BTB News

Check Also

ঘরোয়া বৈঠক ও বিবৃতির জোরে কতদিন টিকতে পারবে বিএনপি?

নিউজ ডেস্ক: বিএনপি ক্ষমতার বাইরে রয়েছে এক যুগ হলো। সর্বশেষ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও চরমভাবে …

তারেক রহমানকে চার ঘন্টাব্যাপী জিজ্ঞাসাবাদ

নিউজ ডেস্ক: লন্ডনে পলাতক বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্র দপ্তরের হোম …

বিতর্কিত অবস্থান পরিবর্তনে ব্যর্থ হওয়ায় পদত্যাগ করলেন জামায়াত নেতা ব্যারিস্টার রাজ্জাক, কৌশল বলছেন বিশ্লেষকরা

দেশের রাজনীতিতে কোণঠাসা হয়ে এবং বৈশ্বিক অগ্রহণযোগ্যতা বিবেচনায় জামায়াতে ইসলামীর নাম পরিবর্তন কিংবা দল ভেঙ্গে …

ফখরুলের বিদায় নিশ্চিত, কে হচ্ছেন বিএনপির নতুন মহাসচিব?

সদ্য সমাপ্ত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ নিয়ে দ্বন্দ্বে জর্জরিত ছিলো বিএনপি। এই দ্বন্দ্বের প্রধান …

জামায়াত ছাড়লেন রাজ্জাক: নতুন কোনো দুরভিসন্ধি নয়তো?

মুক্তিযুদ্ধে প্রশ্নবিদ্ধ ভূমিকার জন্য নিষিদ্ধ রাজনৈতিক দল জামায়াতে ইসলামীর সহকারী‘সেক্রেটারী জেনারেল’ পদ থেকে পদত্যাগ করেছেন ব্যারিস্টার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *