সমালোচনা করেও বিএনপির নেতারা টিকা নিচ্ছেন : তথ্যমন্ত্রী

সমালোচনা করেও বিএনপির নেতারা টিকা নিচ্ছেন : তথ্যমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক: আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, পরীক্ষিত নেতা-কর্মীরা দলের নেতৃত্বে এলে শেখ হাসিনার হাত আরো শক্তিশালী হবে।

আজ বুধবার দুপুরে পাবনার ফরিদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন।

ফরিদপুর ওয়াজি উদ্দিন পৌর মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে তিনি আরো বলেন, ক্ষমতায় থাকলে নেতাকর্মীদের মধ্যে যদি আলস্য এসে যায়, সেটা হতে দেওয়া যাবে না। পিঠ বাঁচাতে এবং সহজে টাকা আয় করতে অনেকেই আসবে, তাদের দরকার নাই। পরীক্ষিত নেতাকর্মীরা দলের নেতৃত্বে আসবে। তাহলে শেখ হাসিনার হাত আরো শক্তিশালী হবে।

‘বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ একটি সৃষ্টিশীল সংগঠনের নাম’ উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, এই সংগঠনের নেতৃত্বে স্বাধীনতা এসেছে। বঙ্গবন্ধু প্রাণ বাজী রেখে সংগ্রাম করে স্বাধীনতা এনেছেন। বঙ্গবন্ধু শুধু স্বাধীনতাই চাননি, চেয়েছিলেন উন্নত দেশ গড়তে। কিন্তু পঁচাত্তরের ১৫ আগস্ট তাকে হত্যা করায় সেই স্বপ্ন তিনি বাস্তবায়ন করতে পারেন নাই। আজ বঙ্গবন্ধুর সেই স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে দিবানিশি কাজ করছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

শেখ হাসিনার যাদুকরী নেতৃত্বের কারণে করোনা মহামারি মোকাবিলায় সরকারের পদক্ষেপগুলো বিশ্বব্যাপী প্রশংসিত উল্লেখ করে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, করোনার টিকা এখনও অনেক রাষ্ট্র পায় নাই। বাংলাদেশ টিকা সংগ্রহে অনেক দেশের চাইতে এগিয়ে। আর বাস্তবতা হলো, সমালোচনা করলেও বিএনপির নেতারা নিজেরাও টিকা নিচ্ছেন।

ফরিদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. খলিলুর রহমান খলিলের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক আলী আশরাফুল কবীরের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক এস এম কামাল, কার্যকরী সদস্য কবিতা জাহান কবিতা, পাবনা জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম ফারুক প্রিন্স এমপি, শামসুল হক টুকু এমপি, মো. মকবুল হোসেন এমপি, আহমেদ ফিরোজ কবীর এমপি, নুরুজ্জামান বিশ্বাস, নদিরা ইয়াসমিন জলি, জেলা আওয়ামী লীগের ভারপাপ্ত সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রেজাউল রহিম লাল প্রমুখ।